ভারতে টার্গেট করা হচ্ছে একের পর এক মসজিদকে



ভারতে একটার পর একটা ঐতিহাসিক মসজিদ টার্গেট করা হচ্ছে। গভীর ষড়যন্ত্রের কবলে পড়েছে ভারতের মসজিদগুলো। বাবরি-জ্ঞানবাপীর পর এবার টার্গেট আগ্রা জামে মসজিদ। সম্প্রতি কাশিতে অবস্থিত জ্ঞানবাপী মসজিদ কোনো মন্দির ভেঙে গড়া হয়েছে কি-না, তা খতিয়ে দেখতে প্রত্নতাত্ত্বিক জরিপ চালাতে নির্দেশ দেয় বারানসির একটি আদালত। এটার রেশ কাটতে না কাটতেই এক সপ্তাহের মধ্যে একই ধরনের জরিপ চালাতে উত্তরপ্রদেশের মথুরার একটি আদালতে পিটিশন দায়ের করা হয়েছে। রাজ্যটির আগ্রায় অবস্থিত জাহানারা মসজিদের (আগ্রা জামে মসজিদ নামে বেশি পরিচিত) নিচে হিন্দু দেবতা কৃষ্ণের মূর্তি আছে কি-না, তা খতিয়ে দেখতে এই পিটিশন দায়ের করা হয়েছে। পিটিশনে বলা হয়েছে, মোগল সম্রাট আওরঙ্গজেব মথুরা জামানস্থান মন্দিরে ধ্বংসযজ্ঞ চালিয়ে সেখান থেকে কৃষ্ণের মূর্তি নিয়ে আসেন। পরে আগ্রায় জাহানারা মসজিদের নিচে সেটিকে পুঁতে রাখেন। মথুরায় কৃষ্ণ জন্মভূমি মন্দির লাগোয়া শাহী ঈদগাহ সরানোর দাবি জানানো আইনজীবী শৈলেন্দর সিং এই পিটিশন দায়ের করেছেন। পিটিশনে বলা হয়েছে, জাহানারা মসজিদের নিচে দেব-দেবী মূর্তি আছে কি-না তা খতিয়ে দেখা জরুরি। এ সময় জ্ঞানবাপী মসজিদে প্রত্নতাত্ত্বিক জরিপ চালানোর বিষয়ে বারানসির আদালতের রেফারেন্স দিয়ে জাহানারা মসজিদের ক্ষেত্রেও এমনটা করতে বলা হয়েছে।