সাইন্স ওয়ার্ল্ড


১৪ বছরের বিজ্ঞানী!

বিশ্বের সেরা প্রতিষ্ঠানগুলো যখন করোনাভাইরাসের বিরুদ্ধে কার্যকর একটি প্রতিষেধক আনতে চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে, তখন আলো দেখাল এক ১৪ বছরের কিশোরী। তিনি হলেন টেক্সাসের ভারতীয় বংশোদ্ভূত অনিকা চেবরোলু। মার্কিন সংবাদমাধ্যমের খবর, করোনা-সংক্রমণের সম্ভাব্য চিকিৎসা পদ্ধতির সন্ধান দিয়ে ‘২০২০ থ্রিএম ইয়ং সায়েন্টিস্ট চ্যালেঞ্জ’-এ বিজয়ী হয়েছে অনিকা। ‘ইন-সিলিকো’ পদ্ধতির সাহায্যে একটি অ্যান্টি-ভাইরাল ওষুধ তৈরি করেছে অনিকা। এমন একটি সিসার যৌগ আবিষ্কার করেছে সে, যা কি না সার্স-কোভ-২ ভাইরাসের স্পাইক প্রোটিনে জুড়ে গিয়ে তাকে দুর্বল করে দিতে পারে। অনিকা বলে, ‘আমি একটি যৌগ তৈরি করেছি। এটা করোনাভাইরাসের নির্দিষ্ট প্রোটিনটিতে জুড়ে যায়। এতে ওই প্রোটিনের কর্মক্ষমতা শেষ হয়ে যায়।’ অনিকা জানায়, অষ্টম শ্রেণিতে পড়তে পড়তে সে এই প্রোজেক্টটি জমা দিয়েছিল। শুরুতে অবশ্য কোভিড-১৯ তার গবেষণার লক্ষ্য ছিল না। প্রতিযোগিতার অন্যতম বিচারক সিন্ডি মস বলেন, ‘অনিকার উৎসাহী মন, অনেক প্রশ্ন, এ সবই ওকে প্রতিষেধক তৈরি নিয়ে আগ্রহ বাড়াচ্ছে।’ বড় হয়ে চিকিৎসা বিজ্ঞান নিয়ে গবেষণা করতে চায় অনিকা।